ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক রাষ্ট্রদূত মার্সা বার্নিকাট। ছবি: সংগৃহীত

নিউজ ডেস্ক: রাজধানীর মোহাম্মদপুরে ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক রাষ্ট্রদূত মার্সা বার্নিকাটের গাড়িবহরে হওয়া হামলার অভিযোগে আওয়ামী লীগ-ছাত্রলীগ নেতাসহ ৯ জনের নামে অভিযোগপত্র দাখিল করেছে গোয়েন্দা পুলিশ।

ঢাকা মহানগর পুলিশের অপরাধ, তথ্য ও প্রসিকিউশন শাখা থেকে জানা গেছে, গত ১৮ জানুয়ারি মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবির পুলিশ পরিদর্শক মো. আবদুর রউফ এই অভিযোগপত্র দাখিল করেন। আওয়ামী লীগ-ছাত্রলীগ নেতাসহ ৯ জনের নামে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়।

অভিযোগপত্রে ছাত্রলীগের নাইমুল হাসান, ফিরোজ মাহমুদ, মীর আমজাদ হোসেন, মো. সাজু ইসলাম, রাজিবুল ইসলাম রাজু, শহিদুল আলম খান কাজল, তান্না ওরফে তানহা ওরফে মুজাহিদ আজমি তান্না, সিয়াম, অলি আহমেদ ওরফে জনির নাম উল্লেখ করা হয়। এছাড়া অজ্ঞাতনামা নাম-ঠিকানা জানতে না পারায় আরও ১৫-২০ আসামির নাম অভিযোগপত্রে আসেনি। তবে ১৯ জনকে সাক্ষী করা হয়।

অভিযোগপত্রে বলা হয়েছে, ২০১৮ সালে ৪ আগস্ট রাতে সুশাসনের জন্য নাগরিক-সুজনের সম্পাদক ড. বদিউল আলম মজুমদারের মোহাম্মদপুর ইকবাল রোডের বাসায় নৈশভোজের অংশ নিতে যান যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক রাষ্ট্রদূত বার্নিকাট। যেখানে গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন ও বিএনপি নেতা মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বীর বিক্রমও অংশ নেন। খবর পেয়ে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা সরকার বিরোধী ষড়যন্ত্র হচ্ছে অভিযোগ করে বদিউল আলম মজুমদারের বাসায় ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে৷ নৈশভোজ শেষে বেরিয়ে যাওয়ার সময় তারা বার্নিকাটের গাড়ি ধাওয়া করলে তিনি দ্রুত ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন। এ ঘটনায় ওই বছর ১০ আগস্ট রাতে ড. বদিউল আলম মজুমদার বাদী হয়ে মোহাম্মদপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

মামলায় বলা হয়, ওই রাতে ৩০-৪০ জন দুর্বৃত্ত বার্নিকাটের গাড়িতে হামলা করে। তারা বার্নিকাটের ড্রাইভার ও বদিউলের ছেলের ওপর আক্রমণ করে। বার্নিকাটের গাড়িতে পেছনে পেছনে ধাওয়া করে ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এ সময় পিস্তল ও লাঠিসোঁটা নিয়ে মার্কিন রাষ্ট্রদূতের গাড়িতে আগুন দেওয়ার উস্কানি দেয় বলেও অভিযোগ করা হয়।